1. admin@manobkollan.com : admin :
  2. mkltdnews@gmail.com : Anamul Gazi : Anamul Gazi
  3. mdrifat3221@gmail.com : MD Rifat : MD Rifat
  4. mkltd2020@gmail.com : Mehedi Hasan : Mehedi Hasan
  5. riff1431@gmail.com : Shariar R. Arif : Shariar R. Arif
বিয়ের দিন সকালে মেয়েদের যে কাজ গুলো করে রাখা উচিত - মানব কল্যাণ
সোমবার, ১৮ জানুয়ারী ২০২১, ০৪:১৭ অপরাহ্ন
নোটিশঃ
আসসালামু আলাইকুম  মানবকল্যাণ এর সাথে যুক্ত হওয়ার জন্য  আপনাকে অভিনন্দন। আমরা আপনাদের সহযোগীতায় একদিন শিখরে পৌছাব "ই"। ইনশাআল্লাহ । বিজ্ঞপ্তিঃ সারাদেশব্যপী প্রতিনিধি নিয়োগ চলিতেছে।   ই-মেইলঃ info@manobkollan.com ফোন নাম্বারঃ 01718863323

বিয়ের দিন সকালে মেয়েদের যে কাজ গুলো করে রাখা উচিত

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • Update Time : শুক্রবার, ২৫ সেপ্টেম্বর, ২০২০
20200925 170452 মানব কল্যাণ

মোঃ আলমগীর হোসেন

বিয়ে জীবনের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ দিন। আর তাই এই দিন নিয়ে যেমন উত্তেজনা থাকে, তেমনই টেনশনও থাকে অনেক মেয়ের মধ্যে । বিয়ের দিন সকালে থেকেই হই-হুল্লোড়, আচার-অনুষ্ঠান, কাজের চাপে টেনশনও করতে থাকেন বেশির ভাগ কনেই।

এই দিন টেনশন না করে শান্ত থাকার চেষ্টা করুন। তা হলে দিনটা আরও ভাল ভাবে উপভোগ করতে পারবেন। এই কাজগুলো বিয়ের দিন সকালে করুন অবশ্যই। বিয়ের দিন ভোর বেলা উঠে খাওয়া উচিত। বাঙ্গালি সংস্কৃতিতে আগে বিয়ের দিন সকালে কনেকে ভাত ও ঘটি বাড়িতে কনেকে দই-চিঁড়ে খাওয়ানো হত।

তাই ভাল করে খেয়ে নিন। কারণ এর পর হয়তো সারা দিন খেতে পারবেন না। নিজেকে এনার্জেটিক রাখতে ভাল করে ব্রেকফাস্ট করা প্রয়োজন। তবে, বেশির ভাগ পরিবারেই বিয়ের দিন না খেয়ে থাকার নিয়ম। বিশেষ করে ভাত না খাওয়ার নিয়ম থাকে। না খেয়ে থাকলে অ্যাসিডিটি/ গ্যাসের প্রবলেম, মাথা যন্ত্রণার মত অনেক সমস্যা হতে পারে।

তাই নিজেকে হাইড্রেটেড রাখা জরুরি। সারা দিন ফলের রস, দইয়ের ঘোল বা লেবু, আদা, শশা দেওয়া রিফ্রেশিং পানি/জল খান। এই দিন অনেক কাজ থাকবে। পার্লারে যাওয়ার জন্য জিনিসপত্র গোছানো, ফটোগ্রাফারের সঙ্গে যোগাযোগ রাখা। সব মিলিয়ে টেনসন করা খুব স্বাভাবিক। কী কী কাজ করেছেন তার একটা প্রয়োজনীয় লিস্ট তৈরি করে রাখুন।

তা হলে মাথায় রাখা সহজ হবে। সকালের আচার-অনুষ্ঠান শেষ হতে হতেই সাজতে পার্লারে যাওয়ার সময় এসে যাবে। শাড়ি, গয়না, জুতো সব কিছু গুছিয়ে পার্লারে নিয়ে যেতে হবে। আপনি গায়ে হলুদ নিয়ে ব্যস্ত থাকবেন। তাই কোনও বন্ধু বা বোনকে দায়িত্ব দিন আপনার জিনিসপত্র ঠিকঠাক গুছিয়ে দিতে ও নিজের দায়িত্বে রাখতে।

বেরনোর সময় যাতে তাড়াহুড়ো না করতে হয়। ফোনে চার্জ আছে কিনা অবশ্যই দেখে নিন। এ দিন ফ্লোরিস্ট, ফোটোগ্রাফার অনেকের জরুরি কন্ট্যাক্ট থাকবে আপনার ফোনে। আবার সন্ধ্যা বেলা অনুষ্ঠানের সময়ও অনেক ফোন আসবে। ফোনের চার্জ ফুরিয়ে গেলে বিপদে পড়বেন। তাই ফোন চার্জ দিয়ে রাখুন। বিয়ে মানে কিন্তু সেই দিন বা পরদিনই আপনাকে বাড়ি থেকে চলে যেতে হবে।

তারপরে কয়েক দিনের মধ্যেই হানিমুন। আবার কবে বাড়িতে আসবেন জানেন না। তাই ব্যাগে সব জিনিস ঠিকঠাক গুছিয়েছেন কিনা দেখে নিন। অবশ্যই ব্যাগ আগে থেকে গুছিয়ে রাখবেন, বিয়ের দিনের জন্য ফেলে রাখবেন না। এ দিন শুধু আরেক বার দেখে নিন প্রতিদিনের কাজের সব প্রয়োজনীয় জিনিস, হানিমুনের প্রয়োজনীয় জিনিস নিয়েছেন কি না। যদি বেশি টেনসন করেন তা হলে কিন্তু চেহারায় কালি পড়ে যাবে। তাই সবচেয়ে আগে প্রয়োজন রিল্যাক্স করা এবং বিশ্রাম নেওয়া। বাড়িতে অনেক হই হুল্লোড় এ গেস্ট বা আত্মীয়তার মধ্যেও রিলাক্স এবং বিশ্রাম নেওয়া খুবই প্রয়োজন।

সোসাল মিডিয়ায় সেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও সংবাদ

বিভাগ

Development Nillhost
error: Content is protected !!