তারাকান্দা উপজেলায় যথাযোগ্য মর্যাদায় আন্তর্জাতিক নারী দিবস উদযাপন

যথাযোগ্য

তারাকান্দা উপজেলায় যথাযোগ্য মর্যাদায় আন্তর্জাতিক নারী দিবস উদযাপন,স্বাবলম্বী নারীদের স্টলে পেয়েছে ভিন্নমাত্রা

” এ জগতে যা কিছু মহান সৃষ্টি চির কল্যানকর , অর্ধেক তার করিয়াছে নারী অর্ধেক তার নর। ” আজ আন্তর্জাতিক নারী দিবস। সারা বিশ্বের পাশাপাশি বাংলাদেশেও নানা আয়োজনে পালিত হচ্ছে দিবসটি।

এবারের আন্তর্জাতিক নারী দিবসের স্লোগান হচ্ছে—Women in leadership : Achieving an equal future in a COVID-19 world. অর্থাৎ ‘কভিড বিশ্বে সমতার ভবিষ্যৎ অর্জনে নারী নেতৃত্ব’। নারী দিবসের এই প্রতিপাদ্য বাংলাদেশে তো প্রতিষ্ঠিত। আন্তর্জাতিক স্বীকৃতিও মিলেছে তার। কমনওয়েলথভুক্ত ৫৪টি দেশের সরকার প্রধানদের মধ্যে শীর্ষ তিনজনের অন্যতম নেতা হিসেবে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নাম উল্লেখ করা হয়েছে।

কমনওয়েলথ মহাসচিব প্যাট্রেসিয়া স্কটল্যান্ড কিউসির ‘আন্তর্জাতিক নারী দিবস ২০২১’ উপলক্ষে দেওয়া এক বিশেষ ঘোষণায় বলা হয়েছে, এই তিন ব্যক্তিত্ব বিশ্বের আরো অনেক নারীর পাশাপাশি আমাকে এমন একটি বিশ্ব গড়ে তোলার ব্যাপারে অনুপ্রেরণা জুগিয়েছেন, যেখানে নারী-পুরুষ-নির্বিশেষে সবার সম্মিলিত সুন্দর ভবিষ্যৎ ও কল্যাণ সুনিশ্চিত ও সুরক্ষিত থাকবে।

আন্তর্জাতিক নারী দিবসের প্রাক্কালে এই স্বীকৃতি সারা দেশের জন্যই এক বড় সম্মান বয়ে এনেছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জাতীয় জীবনের সকল ক্ষেত্রে নারীর সম অধিকারের বিষয়টি সংবিধানে নিশ্চিত করেছেন। নারী পুরুষের যৌথ প্রচেষ্টায় বিনির্মাণ হবে জাতির পিতার স্বপ্নের সোনার বাংলাদেশ।

নারী তার মেধা ও শ্রম দিয়ে যুগে যুগে সভ্যতার সকল অগ্রগতি এবং উন্নয়নে করেছে সমঅংশীদারিত্ব। আর তাই সারা বিশ্বে বদলে গেছে নারীর প্রতি দৃষ্টিভঙ্গি। এখন নারীর কাজের মূল্যায়ন হচ্ছে, বৃদ্ধি পাচ্ছে স্বীকৃতি।

লিঙ্গ সমতা ও নারীর ক্ষমতায়নে বাংলাদেশ এখন রোল মডেল। আমাদের জাতীয় উন্নয়নের প্রতিটি ক্ষেত্রে নারীর অংশগ্রহণ নিশ্চিত করতে আমরা গ্রহণ করেছি নানামুখী পরিকল্পনা ও পদক্ষেপ।

এ দিবসের তাৎপর্য তুলে ধরতে আজ তারাকান্দা উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে উপজেলা প্রশাসন ও মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তর,তারাকান্দার আয়োজনে মুক্তিযোদ্ধ, মুজিব শতবর্ষ সহ করোনা পরিস্থিতিতে নারী নেতৃত্ব এবং নারীর বলিষ্ঠ অবদান শীর্ষক আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। এতে সভাপতিত্ব করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার জনাব জান্নাতুল ফেরদৌস, উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা রেহানা আক্তার খাতুনের সঞ্চলনায় নারী দিবসের তাৎপর্য তুলে ধরে গুরুত্বপূর্ণ বক্তব্য রাখেন,সহকারী কমিশনার( ভূমি)জনাব তাহমিনা আক্তার,তারাকান্দা থানার অফিসার ইনচার্জ আবুল খায়ের সোহেল,উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান নজরুল ইসলাম নয়ন,মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান সালমা আক্তার কাকন, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বাবু প্রদীপ কুমার চক্রবর্তী রণু ঠাকুর, উপজেলা আওয়ামী লীগের শিক্ষা ও মানবসম্পদ বিষয়ক সম্পাদক ও তারাকান্দা উপজেলা প্রেসক্লাব,বণিক সমিতি ও বঙ্গবন্ধু ফাউন্ডেশনের সভাপতি নূরুজ্জামান সরকার বকুল, বালিখা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান রেজাউল করিম দুদু উপজেলা আনসার ও ভিডিপির কমান্ডার সহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা বিভিন্ন দপ্তরের বিভাগীয় কর্মকর্তাসহ স্থানীয় নারী সংগঠনের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ ও ইলেকট্রনিক ও প্রিন্ট মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ। স্বাবলম্বী নারীর জীবন মান উন্নয়নে নেওয়া বিভিন্ন আত্মকর্মসংস্থান মূলক কর্মসূচীর আওতায় নারী দিবসের এই দিনে উদোক্তা নারীদের সব রকমের সহযোগিতার আশ্বাস দিয়ে সভাপতির বক্তব্য জান্নাতুল ফেরদৌস বলেন, নারীকে গৃহস্থালির কাজ শেষ করে চাকুরী সহ অন্যান্য কাজ করতে হয়, তাই তাদের প্রতি শ্রদ্ধাশীল ও সহনশীল আচরণ করতে হবে, সুশিক্ষা নিয়ে সকল ক্ষেত্রে নিজেকে যোগ্য করে গড়ে তুললেই সবাই সমীহ করবে।বাংলাদেশের নারীর ক্ষমতায়নে বর্তমান সরকার নিরলস ভাবে কাজ করে যাচ্ছে।

পরে নারী উদ্যোক্তাদের দেওয়া প্রদর্শনী কেন্দ্রের বিভিন্ন স্টল পরিদর্শন করেন অতিথিসহ সকলেই। এ ব্যাপারে সকলের সহযোগিতার মাধ্যমে বাজারে ও মহিলা কর্মকর্তার অফিস সংলগ্ন স্থানে সারাবছর ধরে বিভিন্ন পণ্যসামগ্রী বিক্রিয় করা হবে জানান মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা রেহানা আক্তার খাতুন। কোন কালে একা হয়নি ক জয়ী পুরুষের তরবারী প্রেরণা দিয়েছে, শক্তি দিয়েছে বিজয় লক্ষী নারী। পুরুষ-হৃদয়হীন, মানুষ করিতে নারী দিল তারে অর্ধেক হৃদয় ঋণ।

Author: Mansur Talukder

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *